Beta
সোমবার, ১৫ এপ্রিল, ২০২৪

সীমান্ত সম্মেলন শেষে সীমান্তে হত্যা নিয়ে যে বক্তব্য এলো

ঢাকায় সীমান্ত সম্মেলন শেষে যৌথ সংবাদ সম্মেলনে বিজিবি ও বিএসএফের মহাপরিচালক।
ঢাকায় সীমান্ত সম্মেলন শেষে যৌথ সংবাদ সম্মেলনে বিজিবি ও বিএসএফের মহাপরিচালক।

যৌথ আলোচনার দলিল সইয়ের মধ্য দিয়ে ঢাকায় শেষ হলো বাংলাদেশ ও ভারতের সীমান্ত রক্ষী বাহিনীর পাঁচ দিনের সম্মেলন।

বিজিবি ও বিএসএফের মহাপরিচালক পর্যায়ের এই সম্মেলনের শেষ দিন শনিবার পিলখানায় বিজিবি সদর দপ্তরে সংবাদ সম্মেলনে আসেন দুই বাহিনীর প্রধান।

সেখানে সীমান্তে বিএসএফের সাম্প্রতিক হত্যাকাণ্ড নিয়ে প্রশ্নের মুখে পড়েন তারা। বিএসএফ প্রধান নিতিন আগ্রাওয়াল এবং বিজিবি প্রধান মোহাম্মদ আশরাফুজ্জামান সিদ্দিকী দুজনই বলেন, এই ধরনের হত্যাকাণ্ড উদ্দেশ্যপ্রণোদিত নয়।

বাংলাদেশ-ভারতে সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে মানুষের মৃত্যুর ঘটনা দেশে-বিদেশে আলোচিত। বিভিন্ন সময়ে আন্তর্জাতিক মানবাধিকার গোষ্ঠীগুলোও এনিয়ে সরব হয়েছে।

সীমান্তে হত্যা শূন্যে নামিয়ে আনার প্রতিশ্রুতি বিএসএফ দিয়ে এলেও তা থামছে না। মানবাধিকার সংগঠন আইন ও সালিশ কেন্দ্রের (আসক) হিসাবে, ২০২৩ সালে বিএসএফের হাতে ৩০ বাংলাদেশিকে প্রাণ হারাতে হয়।

এই বছরের জানুয়ারিতে যশোর সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে বিজিবির সদস্য রইসুদ্দিন মারা গেলে বড় হয়ে সামনে আসে সীমান্তে হত্যাকাণ্ড।

শনিবার সংবাদ সম্মেলনে এনিয়ে সাংবাদিকরা প্রশ্ন করলে বিএসএফ মহাপরিচালক নিতিন আগ্রাওয়াল বলেন, “ওই দিন কী ঘটেছিল, সে বিষয়ে ইতোমধ্যেই বিজিবিকে বিস্তারিত জানিয়েছে বিএসএফ। এ বিষয়ে আমি আর ব্যাখ্যা করব না।”

একই প্রশ্নের জবাবে বিজিবি মহাপরিচালক মেজর জেনারেল আশরাফুজ্জামান বলেন, “প্রথমত এটি টার্গেট কিলিং নয়। দুই পক্ষেরই এটা নিয়ে দ্বিধা ছিল। সেদিন অন্ধকার ও ঘনকুয়াশা ছিল। বিএসএফ বিষয়টি অফিসিয়ালি আমাদের জানিয়েছে।

“আমাদের দুই পক্ষেরই সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা রয়েছে পোশাকধারী ও সাধারণ নাগরিকদের কারও যেন প্রাণহানির ঘটনা না ঘটে। কোনও প্রাণ যাক, আমরা কেউই চাই না। মানুষের প্রাণ রক্ষায় আমাদের সর্বোচ্চ চেষ্টা রয়েছে।”

সীমান্তে হত্যা নিয়ে আরেক প্রশ্নের জবাবে বিএসএফ প্রধান বলেন, “বাংলাদেশ বর্ডারে প্রাণঘাতী নয়, এমন অস্ত্র ব্যবহার করছে বিএসএফ। এছাড়া সীমান্ত হত্যা শূন্যে নামিয়ে আনতে নানা উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

“কিন্তু সীমান্ত এলাকায় সংঘবদ্ধ অপরাধ, মানবপাচার, চোরাকারবারির মতো নানা অপরাধীরা বিভিন্ন সময় বিএসএফ সদস্যদের ওপর আক্রমণ করে। গত বছর প্রায় ৬০ জন বিএসএফ সদস্য দা-এর মতো অস্ত্রের আঘাতে মারাত্মক আহত হয়েছেন। তাই আত্মরক্ষার্থে কখনও কখনও গুলি চালাতে বাধ্য হন বিএসএফ সদস্যরা।”

বিএসএফের প্রতিরোধে শুধু বাংলাদেশি নয়, ভারতীয় অপরাধীরাও মারা যায় বলে দাবি করেন তিনি ।

যৌথ সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ২০২২ সালে বাংলাদেশ ও ভারতের প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া যৌথ বিবৃতির ঘোষণা সমুন্নত রাখতে সীমান্তে নিরস্ত্র বাংলাদেশি হতাহতের ঘটনা শূন্যের কোঠায় নামিয়ে আনার লক্ষ্যে যৌথটহল পরিচালনা জোরদার করতে সম্মত হয়েছে উভয় পক্ষ।

আরও যেসব বিষয়ে মতৈক্য

বিজিবি-বিএসএফ চোরাচালান ও মাদক পাচার বন্ধ এবং বিচ্ছিন্নতাবাদী গোষ্ঠীগুলোর বিষয়ে তথ্য আদান-প্রদানে সম্মত হয়েছে। মিয়ানমারের রোহিঙ্গাদের অনুপ্রবেশ ঠেকাতেও দুই পক্ষ এক থাকবে।

সমঝোতা হয়েছে, সীমান্তের ১৫০ গজের মধ্যে বন্ধ থাকা উন্নয়নমূলক কাজগুলো উভয় দেশের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে সম্পৃক্ত করে দ্রুত এগিয়ে নেওয়া হবে। এই ১৫০ গজের মধ্যে একসারি বিশিষ্ট কাঁটাতারের বেড়া নির্মাণ দ্রুততম সময়ের মধ্যে করা হবে।

পারস্পরিক ঐক্যমতের ভিত্তিতে যৌথ নদী কমিশন কর্তৃক অনুমোদিত সীমান্তের অভিন্ন নদীগুলোর বন্ধ থাকা তীর সংরক্ষণ কাজ ফের শুরু করতে যথাযথ উদ্যোগ নেওয়ার বিষয়ে কাজ করবে বিজিবি ও বিএসএফ।

‘কানেক্টেড বাংলাদেশ’ প্রকল্পের আওতায় তিন বিঘা করিডোর হয়ে দহগ্রামে অপটিক্যাল ফাইবার নেটওয়ার্ক স্থাপনের জন্য ভারতের কর্তৃপক্ষের সঙ্গে প্রয়োজনীয় সমন্বয়ের বিষয়ে সহায়তার আশ্বাস দিয়েছেন বিএসএফ মহাপরিচালক।

সীমান্তবর্তী খাল হয়ে ভারতের আগরতলা থেকে বাংলাদেশের আখাউড়ায় ভেসে আসা শিল্পবর্জ্য মিশ্রিত পানির ক্ষতিকর প্রভাবের কথা তুলে ওপারে বর্জ্য শোধনাগার স্থাপনের বিষয়টি বিজিবি মহাপরিচালক সম্মেলনে তোলেন।

সিলেটের জকিগঞ্জের কুশিয়ারা নদী তীরবর্তী ৫ হাজার হেক্টর চাষযোগ্য ফসলি জমির সেচ সুবিধা চালু ও সীমান্তবর্তী জনগণের দুর্ভোগ লাঘবে রহিমপুর খালের মুখ পুনরায় খুলে দেওয়ার আশ্বাসও দেন বিএসএফ মহাপরিচালক।

মেজর জেনারেল আশরাফুজ্জামানের নেতৃত্বে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও যৌথ নদী কমিশনের সদস্যসহ ১৬ সদস্যের প্রতিনিধি দল এবারের সম্মেলনে অংশ নেয়। নিতিন আগ্রাওয়ালের নেতৃত্বে ভারতের প্রতিনিধি দলে ছিলেন নয়জন।  

আরও পড়ুন

সর্বশেষ

ad

সর্বাধিক পঠিত

Add New Playlist