Beta
শুক্রবার, ১ মার্চ, ২০২৪

আখেরি মোনাজাতে শেষ হলো বিশ্ব ইজতেমা

আখেরি মোনাজাতে অংশ নেন দেশ-বিদেশের লাখো মুসল্লি। ছবি : সকাল সন্ধ্যা

আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হলো বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্ব। এতে অংশ নেন বাংলাদেশসহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশ থেকে আগত মুসল্লিরা। বড় এই ধর্মীয় জমায়েত ঘিরে নেওয়া হয় কড়া নিরাপত্তা ও প্রশাসনিক প্রস্তুতি। আখেরি মোনাজাত উপলক্ষে ইজতেমা সংলগ্ন মহাসড়কে যান চলাচল নিয়ন্ত্রণসহ রাখা হয় বিশেষ ট্রেনের ব্যবস্থা।

তিনদিন ধরে তাবলিগ জামাতের নানামুখী শিক্ষা শেষে রবিবার সকাল ১১টা ১৭ মিনিটে শুরু হয় আখেরি মোনাজাত, যা চলে ১১টা ৪৩ মিনিট পর্যন্ত। ২৬ মিনিট ধরে চলা মোনাজাতে বিশ্ব শান্তি ও মুসলিম উম্মার কল্যাণ কামনা করা হয়। মোনাজাত পরিচালনা করেন মাওলানা সাদের বড় ছেলে ইউসুফ বিন সাদ কান্ধলভি।

এর আগে মোনাজাতে অংশ নিতে রবিবার ভোর থেকে গাজীপুর ও আশপাশের এলাকার মুসল্লিরা ইজতেমা ময়দান ঘিরে জড়ো হতে থাকেন। যানবাহন চলাচল নিয়ন্ত্রিত থাকায় হেঁটেও আসেন মুসল্লিরা। মোনাজাতে অংশ নিতে টঙ্গীর আশপাশে সমবেত হন অনেক নারীও।

আখেরি মোনাজাত উপলক্ষে মুসল্লিদের বাড়ি ফেরার সুবিধার্থে রেলওয়ে বিভাগের পক্ষ থেকে বিশেষ ট্রেনের ব্যবস্থা রাখা হয়। পাশাপাশি সব ট্রেনের যাত্রাবিরতি রাখা হয় টঙ্গী স্টেশনে।

ভোর থেকে মোনাজাত শেষ হওয়া পর্যন্ত ইজতেমা সংলগ্ন ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের ভোগড়া বাইপাস থেকে আব্দুল্লাপুর এবং ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের আশুলিয়া থেকে কামারপাড়া পর্যন্ত যানবাহন চলাচল নিয়ন্ত্রিত রাখা হয়।

প্রতিবছর টঙ্গীর তুরাগ নদের তীরে আয়োজন করা হয়ে থাকে তাবলিগ জামাতের শীর্ষ সম্মেলন বিশ্ব ইজতেমা, যেখানে দেশ-বিদেশের লাখো মুসল্লি যোগ দেন। ২০১৮ সালের বিরোধের পর থেকে বাংলাদেশের মাওলানা জুবায়ের ও দিল্লির মৌলভি সাদ কান্ধলভির অনুসারীরা ২০১৯ সাল থেকে আলাদাভাবে দুই পর্বে ইজতেমা আয়োজন করে আসছে।

আরও পড়ুন

সর্বশেষ

ad

সর্বাধিক পঠিত

Add New Playlist