Beta
শুক্রবার, ১ মার্চ, ২০২৪

সাত বছর পর তিন নম্বরে সেঞ্চুরি

স্বস্তির সেঞ্চুরির পর শুভমান গিল। ছবি : এক্স

তিন নম্বর জায়গাটা মাথা ব্যথার কারণই ছিল ভারতের। টানা সাত বছর এই পজিশনে ব্যাট করে টেস্টে দেশের মাটিতে সেঞ্চুরি পাননি কোন ভারতীয় ব্যাটার। আক্ষেপটা মেটালেন শুভমান গিল।

রবিবার বিশাখাপত্তমে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সেঞ্চুরি করেছেন গিল। এটা ২০১৭ সালের নভেম্বরে নাগপুরে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে চেতশ্বর পূজারার পর, তিন নম্বরে দেশের মাটিতে কোন ভারতীয়র প্রথম সেঞ্চুরি।

রান খরায় ভুগছিলেন শুভমান গিলও। গত বছরের মার্চে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সেঞ্চুরির পর টেস্টে আর তিন অঙ্কের রানের দেখা পাননি তিনি। যস্বশী জয়সওয়ালের উত্থানে ওপেনিং থেকে গত বছরের জুলাইয়ে নেমে এসেছেন তিন নম্বরে।

নতুন এই পজিশনেও পাচ্ছিলে না রানের দেখা। ‘ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস’ জানিয়েছে বিশাখাপত্তমে রান না পেলে ৩ নম্বর পজিশনটা হারাতে হবে গিলকে। মানে ছিটকে যেতে হবে টেস্ট দল থেকে।

এমন হুশিয়ারিতে হয়ত দীর্ঘ দিন পর টেস্টে সেঞ্চুরি পেলেন গিল। দাপুটে এই ইনিংসটির পথে রেহান আহমেদের টানা তিন বলে দুই ছক্কা ও একটি বাউন্ডারি মারেন গিল। ২০২২ সালের পর এটা আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে দশম সেঞ্চুরি গিলের। এই সময়ে ভারতের হয়ে ১০টি সেঞ্চুরি আছে আর কেবল বিরাট কোহলির।

১০৪ রানে শোয়েব বশিরের বলে আউট হয়েছেন গিল। তবে তার সেঞ্চুরিতে ভর করে দ্বিতীয় ইনিংসে বড় লিড পেয়েছে ভারত। তৃতীয় দিন তারা অলআউট হয় ২৫৫। জয়ের জন্য ইংল্যান্ডকে করতে হবে ৩৯৯ রান।

টম হার্টলি নিয়েছেন ৪ উইকেট। রেহান আহমেদের উইকেট ৩টি। আর জেমস অ্যান্ডারসনের শিকার ২ উইকেট।

এত বেশি রান তাড়া করে জয়ের ইতিহাস নেই ভারতের মাটিতে। ২০০৮ সালে চেন্নাইয়ে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ৩৮৭ রান তাড়া করে জিতেছিল ভারত। ‘বাজবল’ ক্রিকেটে ইংল্যান্ড কি পারবে?

এরই মধ্যে তৃতীয় দিনের শেষ দিকে ২৭ বলে ২৮ করা বেন ডাকেটের উইকেটটি হারিয়েছে তারা। ইংল্যান্ড দিন শেষ করেছে ১ উইকেটে ৬৭ রানে।

আরও পড়ুন

সর্বশেষ

ad

সর্বাধিক পঠিত

Add New Playlist