Beta
শুক্রবার, ১ মার্চ, ২০২৪

কেন্দ্র ও দুই প্রদেশে সরকার গঠন করতে চান ইমরান

পাকিস্তানের জাতীয় পরিষদে সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়েছে পিটিআই সমর্থিতরা। ছবি : ডন

পাকিস্তানের জাতীয় পরিষদ নির্বাচনের পুরো ফল এখনও ঘোষণা না হলেও এরই মধ্যে নির্বাচনে কারা বিজয়ী হতে যাচ্ছেন সে সম্পর্কে ধারণা পাওয়া গেছে। ২৬৬টি আসনের মধ্যে এখন পর্যন্ত ফল ঘোষণা করা হয়েছে ২৫৭টির। এর মধ্যে ১০১টি আসনেই বিজয়ী হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থীরা, যাদের প্রায় সবাই দেশটির সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের প্রতিষ্ঠিত দল তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) সমর্থিত প্রার্থী।

দ্য ডনের খবরে বলা হয়েছে, কেন্দ্র বা জাতীয় পরিষদের মতো পাকিস্তানের খাইবার পাখতুনখাওয়া ও পাঞ্জাবের প্রাদেশিক পরিষদের নির্বাচনেও সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়েছে পিটিআই সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থীরা। এমন প্রেক্ষাপটে পিটিআই প্রতিষ্ঠাতা ইমরান খান জাতীয় পরিষদের পাশাপাশি এই দুই প্রাদেশিক পরিষদেও সরকার গঠন করতে চান বলে জানিয়েছেন তার আইনজীবী।

শনিবার রাওয়ালপিন্ডির আদিয়ালা কারাগারের বাইরে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে ইমরান খানের আইনজীবী উমাইর খান নিয়াজি বলেন, পিটিআইয়ের প্রতিষ্ঠাতা পাকিস্তানে কেন্দ্রীয় সরকার গঠনের পাশাপাশি পাঞ্জাব ও খাইবার পাখতুন খাওয়ার প্রাদেশিক পরিষদে সরকার গঠন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

ইমরান কানে নিজ শহর মিনাওয়ালি থেকে এবার জাতীয় পরিষদের সদস্য নির্বাচিত হওয়া আইনজীবী নিয়াজি বলেন, জোট সরকার গঠনের ক্ষমতা যাতে নওয়াজ শরিফকে দেওয়া না হয় সে আহ্বান জানিয়েছেন পিটিআই প্রতিষ্ঠাতা, কারণ “এই পরীক্ষা-নিরীক্ষা অতীতে কাজ করেনি”।

ইতোমধ্যে যা ঘটে গেছে তা মেনে নিয়েই ইমরান খান দেশের ভবিষ্যতের জন্য সামনে এগোতে চান জানিয়ে আইনজীবী নিয়াজি বলেন, পিটিআই সমর্থিত যেসব প্রার্থীকে ‘জালিয়াতির মাধ্যমে নির্বাচনে হারানো হয়েছে’, তাদেরকে নিজ নিজ নির্বাচনী এলাকায় গিয়ে রাস্তায় নেমে জালিয়াতির প্রতিবাদ জানানোর আহ্বান জানিয়েছেন ইমরান খান।

এদিকে, নির্বাচনে একক দল হিসেবে সবচেয়ে বেশি আসন পাওয়া নওয়াজ শরিফের দল পাকিস্তান মুসলিম লিগ (পিএমএল-এন) সরকার গঠনের জন্য জোর প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। ইতোমধ্যে নির্বাচনে বিজয়ী হওয়ার দাবি তোলা নওয়াজ শরিফ তার ভাই শেহবাজ শরিফকে দায়িত্ব দিয়েছেন পিপিপি, জেইউআই-এফ ও এমকিউএম-পি সঙ্গে যোগাযোগ করে জোট গঠনের বিষয়ে আলোচনা এগিয়ে নিতে।

পিপিপির চেয়ারম্যান বিলাওয়াল ভুট্টো ও তার বাবা পাকিস্তানের সাবেক প্রেসিডেন্ট আসিফ আলি জারদারির সঙ্গে ইতোমধ্যে বৈঠক করেছেন পিএমএল-এনের সভাপতি শেহবাজ শরিফ। সেই বৈঠকে জোট করার বিষয়ে নেতৃবৃন্দ নিজ নিজ দলীয় ফোরামে আলোচনা করবেন বলে জানালেও এ বিষয়ে চূড়ান্ত কোনও সিদ্ধান্ত এখনও হয়নি বলে জানিয়ৈছেন নওয়াজ শরিফের মেয়ে মরিয়ম।

আরও পড়ুন

সর্বশেষ

ad

সর্বাধিক পঠিত

Add New Playlist