Beta
মঙ্গলবার, ২৫ জুন, ২০২৪
Beta
মঙ্গলবার, ২৫ জুন, ২০২৪

ইরানের প্রেসিডেন্টকে বহনকারী হেলিকপ্টার দুর্ঘটনায়

ইরানের প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ রাইসি। ছবি : ফার্স নিউজ এজেন্সি
ইরানের প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ রাইসি। ছবি : ফার্স নিউজ এজেন্সি
Picture of সকাল সন্ধ্যা ডেস্ক

সকাল সন্ধ্যা ডেস্ক

ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসিকে বহনকারী একটি হেলিকপ্টার দুর্ঘটনায় পড়েছে। তবে রাইসিসহ এর আরোহীদের কী অবস্থা, তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

ইরানের সরকারি বার্তা সংস্থা ইরনা জানায়, হেলিকপ্টারটিতে রাইসির সঙ্গে ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমির-আব্দুল্লাহিয়ান এবং পূর্ব আজারবাইজানের গভর্নর মালেক রাহমাতিসহ কয়েকজন গুরুত্বপূর্ণ সরকারি কর্মকর্তাও ছিলেন।

রবিবার পূর্ব আজারবাইজান প্রদেশে একটি জলাধারের বাঁধ উদ্বোধনের পর ইরানের প্রেসিডেন্ট তাবরিজ শহরে ফিরছিলেন। পথে উত্তরাঞ্চলীয় ভারজাকান এলাকায় হেলিকপ্টারটি দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ায় পড়ে।

ইরানের আরেকটি সংবাদ সংস্থা ফার্স জানায়, ঘন কুয়াশার মধ্যে হেলিকপ্টারটি জরুরি অবতরণ করতে গিয়ে দুর্ঘটনায় পড়ে।

হেলিকপ্টারে করে আজারবাইজান সীমান্তে একটি বাঁধ উদ্বোধনে গিয়েছিলেন ইব্রাহিম রাইসি; ফেরার পথে পড়েন দুর্ঘটনায়।

প্রেসিডেন্টের বহরের সঙ্গে আরও দুটি হেলিকপ্টার ছিল। সেগুলো নিরাপদেই গন্তব্যে পৌঁছেছে বলে ইরনা জানিয়েছে।

তবে প্রেসিডেন্টকে বহনকারী হেলিকপ্টার এবং এর আরোহীরা কী অবস্থায় রয়েছেন, সে বিষয়ে নিশ্চিত কোনও তথ্য পাওয়া যায়নি।

ইরনা জানিয়েছে, দুর্ঘটনাস্থলে উদ্ধারকারী দল রওনা হয়েছে। অনুসন্ধানও শুরু হয়েছে। তবে ঘন কুয়াশা থাকায় এবং এলাকাটি দুর্গম হওয়ায় উদ্ধার কাজে বেগ পেতে হচ্ছে।

ইরানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আহমেদ ভাহিদি রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে বলেছেন, বৈরী আবহাওয়ার কারণে উদ্ধারকারী দলের দুর্গম ওই এলাকায় পৌঁছতে সময় লাগতে পারে।

ইরানের আধা সরকারি বার্তা সংস্থা তাসনিম নিউজ জানিয়েছে, দুর্ঘটনার পর প্রেসিডেন্টের সঙ্গে থাকা কর্মকর্তারা সদরদপ্তরে ফোন করেছিলেন। ফলে এ দুর্ঘটনায় কেউ হতাহত হননি বলেই ধারণা করা হচ্ছে।

এদিকে রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে প্রেসিডেন্ট রাইসির জন্য দোয়া করতে জনগণকে আহ্বান জানানো হয়েছে। মাশাদ শহরের নাগরিকদের প্রার্থনা করতেও দেখা গেছে।

ইব্রাহিম রাইসিকে ইরানের সর্বোচ্চ ধর্মীয় নেতা আয়াতোল্লাহ আলী খামেনির সম্ভাব্য উত্তরসূরি মনে করা হয়।

ইরানের প্রেসিডেন্টের হেলিকপ্টার দুর্ঘটনায় পড়ার খবর আন্তর্জাতিক সব সংবাদ মাধ্যমের শিরোনাম হয়েছে। তবে নিশ্চিত কোনও তথ্য কোথাও আসেনি।

বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ঠিক কী ঘটেছে, তার বিশদ বিবরণ অস্পষ্ট রয়ে গেছে এবং দুর্ঘটনার পর রাইসির অবস্থান সম্পর্কেও নিশ্চিত করে কিছু জানানো হয়নি।

সিএনএনের প্রতিবেদনে হেলিকপ্টারটি বিধ্বস্ত হয়েছে বলে খবর দিয়ে বলা হয়েছে, প্রেসিডেন্ট রাইসির বিষয়ে কিছু জানা যায়নি।

আল জাজিরার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ৪০টি অনুসন্ধানী দল নেমেছে। এর মধ্যে আটটি অ্যাম্বুলেন্সও রয়েছে। ড্রোনও ব্যবহার করা হচ্ছে।

এলাকাটি দুর্গম হওয়ায় সেখানে মোবাইল নেটওয়ার্ক পাওয়া যাচ্ছে না বলে ইউনিভার্সিটি অব তেহরানের এক অধ্যাপকের উদ্ধৃতি দিয়ে জানিয়েছে আল জাজিরা।

৬৩ বছর বয়সী রাইসি দ্বিতীয় দফার চেষ্টায় ২০২১ সালে ইরানের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন। তাকে ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতোল্লাহ আলী খামেনির সম্ভাব্য উত্তরসূরি মনে করা হয়।

আরও পড়ুন

সর্বশেষ

ad

সর্বাধিক পঠিত