Beta
রবিবার, ১৪ এপ্রিল, ২০২৪

মানসিকতা, মনোভাব জঘন্য বিচ্ছিরি ছিল : পাপন

মিরপুরে গণমাধ্যমের মুখোমুখি নাজমুল হাসান পাপন। ছবি : সংগৃহীত
মিরপুরে গণমাধ্যমের মুখোমুখি নাজমুল হাসান পাপন। ছবি : সংগৃহীত

সিলেটে অসহায় আত্মসমর্পণ করেছে বাংলাদেশ। শ্রীলঙ্কার কাছে টেস্ট হেরেছে ৩২৮ রানের বড় ব্যবধানে। টেস্টে এর চেয়েও বড় ব্যবধানে হারের রেকর্ড আছে বাংলাদেশের। তবে সিলেটে যেভাবে দল আত্মসমর্পণ করেছে সেটা মানতে পারছেন না যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রী এবং বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন।

মিরপুরে আজ (মঙ্গলবার) সংবাদ মাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে নাজমুল হাসান জানালেন নাজমুল হোসেন শান্তর দলের ক্রিকেটাররা হয়ত টেস্টে আগ্রহী না। এটা না হলে অন্য সমস্যার কথাও মনে হয়েছে পাপনের, ‘‘’সমস্যা হচ্ছে হারাটা নিয়ে না, সমস্যা হচ্ছে যেভাবে তারা হেরেছে। যেভাবে তারা খেলেছে, তাদের এই মানসিকতা, মনোভাব, শট সিলেকশন এটা জঘন্য। বিচ্ছিরি ছিল দেখতে। মনে হয়েছে তারা খেলতে চায় না এই ফরম্যাটটা। অথবা অন্য কোনো সমস্যা।’’

লিটন দাসের প্রথম বলে ডাউন দ্য ট্র্যাকে এসে ছক্কা মারা নিয়ে সমালোচনা হয়েছে অনেক। এটা মানতে পারছেন না পাপনও, ‘‘বিশ্বকাপ থেকেই ওকে দেখতেছি। মনে হচ্ছে, দেয়ার ইজ সামথিং রং। এজন্যই তাকে কিন্তু ওয়ানডে থেকেও ড্রপ করেছি।’’

লিটন দাসকে ওয়ানডে থেকে বাদ দেওয়াটাকে এই ওপেনারের জন্য বার্তা বললেন নাজমুল হাসান পাপন,‘‘ চিন্তা করে দেখেন ওর মতো একজন ওপেনার এত বছর ধরে যাকে আমরা খেলিয়েছে যার ওপর আমরা ডিপেন্ড করেছি। সে পারফর্ম করেছে এমন তো না সে খেলা পারে না। কিন্তু কিছু একটা সমস্যা হচ্ছে তাই তাকে ওয়ানডে থেকে বাদও দিয়েছি। এর থেকে বড় সিগন্যাল কিছু তো হতে পারে না।’’

সিলেটে লিটনের প্রথম বলে ডাউন দ্য ট্র্যাকে এসে আউট হওয়াটা মানতে পারছেন না পাপন।

সিলেট টেস্টে লিটনকে না খেলালেই ভালো হত বলে মনে করছেন পাপন, ‘‘ টেস্ট ম্যাচটাতেও না খেলালেই ভালো হতো আমাকে যদি জিজ্ঞেস করেন। কিন্তু তখন আপনারা সবাই বলতেন টেস্টে আপনার এমন রেকর্ড, এই-সেই। ওরে কেন বাদ দিলো। খামাাখা একটা হুলস্থূল মানুষ করতো। কিন্তু ওকে এই জায়গাটায় আরও কিছুদিন বিরতি দিলে ও ভালোভাবেই কামব্যাক করতে পারতো।’’

তবে এখনই দলের পারফর্ম্যান্সে ভেঙে পড়ার মত কিছু দেখছেন না পাপন, ‘‘এখানে হারা জেতা নিয়ে চিন্তিত না। হঠাৎ করে অন্যান্য দেশের অভিজ্ঞ খেলোয়াড়রা যখন চলে যায় নতুন একটা দল আসে তারা ৪-৫ বছর স্ট্রাগল করেই। সেদিক থেকে বলব আমাদের দলে ওরকম খারাপ অবস্থা হয়নি।’’

অভিজ্ঞ খেলোয়াড় না থাকার কথাটাও স্মরণ করিয়ে দিলেন পাপন, ‘‘তামিম, সাকিব, মুশফিক, রিয়াদের মত প্লেয়াররা নেইা। ওরা প্রথম এরকম একটা খেলা খেলতে যাচ্ছে যেখানে কেউ নাই। দ্বিতীয়ত আপনারা আরেকটা জিনিস খেয়াল করবেন উইকেটটা। টোটালি আমরা অন্য ধরনের উইকেটে খেলাচ্ছি এখন। এটাতে করে আমরা যারা নাকি খেলছে, তাদের জন্যও তো নতুন অভিজ্ঞতা ‘’

পাপন আরও যোগ করলেন, ‘‘একেবারে জিনিসটা কে বাদ দেওয়া যাবে না। এটাও আমাদের একটা পরের ধাপে যাওয়ার জন্য যা যা করা দরকার আমরা সেই পদ্ধতিতে করছি। এদিক থেকে আমি বলবো হারা জেতাটা গুরুত্বপূর্ণ না। কী হয়েছে সেটা নিয়ে আমি একেবারেই চিন্তিত না। এটা যে একদম অপ্রত্যাশিত ছিল তাও না।’’

আরও পড়ুন

সর্বশেষ

ad

সর্বাধিক পঠিত

Add New Playlist