Beta
সোমবার, ৪ মার্চ, ২০২৪

মরুর বুকে আরেকটি এল ক্লাসিকো

গত স্প্যানিশ সুপার কাপেরই পুনরাবৃত্তি। সৌদি আরবে গত বছর ফাইনালে মুখোমুখি হয়েছিল রিয়াল মাদ্রিদ-বার্সেলোনা। মরুর বুকে একই টুর্নামেন্টে আরও একবার এল ক্লাসিকো হবে ফাইনালে। গতরাতে ওসাসুনাকে ২-০ গোলে হারিয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করেছে জাভি এর্নান্দেসের দল। গোল দুটি করেছেন  রবার্ত লেভানদস্কিও ও লামিন ইয়ামাল।

৬৭.৯ শতাংশ বলের দখল রেখে পোস্টে ২০টি শট নিয়েছিল বার্সেলোনা। তারপরও দলের পারফর্ম্যান্সে উচ্ছ্বাসে ভেসে যাচ্ছেন না জাভি, ‘‘আমরা অসাধারণ বা দুর্দান্ত খেলিনি, তবে ভালো খেলেছি। ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ আমাদেরই ছিল। ওরা বেশ বেগ দিয়েছে, বিশেষ করে বিরতির আগে।’’

গত বছর রিয়াল মাদ্রিদকে ৩-১ গোলে হারিয়ে শিরোপা জিতেছিল বার্সেলোনা। সেটাই ছিল মেসি ক্লাব ছাড়ার পর বার্সার প্রথম ট্রফি।  এবার কাজটা যে সহজ নয় জানা আছে জাভির, ‘‘আমি কোচ হওয়ার পর গত মৌসুমের ফাইনালটাই সম্ভবত সেরা ম্যাচ ছিল। এ বছর রিয়াল আরও ভালো দল। আমরাও উজ্জীবিত আছি।’’

বার্সা প্রথম গোলের দেখা পায় ৫৯ মিনিটে। ইলকায় গুন্দোয়ানের থ্রু বল ধরে বক্সে ঢুকে প্রতিপক্ষের তিন খেলোয়াড়ের মাঝ থেকে ডান পায়ের শটে বল জালে জড়ান লেভানদস্কি। ম্যাচ শেষের কিছুক্ষণ আগে ইনজুরি টাইমের তৃতীয় মিনিটে ব্যবধান ২-০ করেন লামিন ইয়ামাল।

জোয়াও ফেলিক্সের পাস বক্সে পেয়ে বাম পায়ের শটে গোলটি করেন তরুণ ইয়ামাল। এই গোলে রেকর্ডও হয়েছে স্প্যানিয়ার্ড এই তরুণের। স্প্যানিশ সুপার কাপে সবচেয়ে কমবয়সী গোলদাতা তিনি। পাশাপাশি এই টুর্নামেন্টের সবচেয়ে কম বয়সী খেলোয়াড়ও ইয়ামাল। গতরাতে তার বয়স ছিল ১৬ বছর ১৮২ দিন।

আরও পড়ুন

সর্বশেষ

ad

সর্বাধিক পঠিত

Add New Playlist