Beta
সোমবার, ৪ মার্চ, ২০২৪

আন্তর্জাতিক সাঁতার সংস্থার বিরুদ্ধে ট্রান্সজেন্ডার সাঁতারুর মামলা

লিয়া টমাস।

ট্রান্সজেন্ডার সাঁতারু লিয়া টমাস আন্তর্জাতিক সাঁতার সংস্থার (ওয়ার্ল্ড অ্যাকুয়াটিকস) বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক ক্রীড়া আদালতে (সিএএস) একটি মামলা করেছেন।

তার অভিযোগ, প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণের ক্ষেত্রে ট্রান্সজেন্ডার অ্যাথলেটদের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে আন্তর্জাতিক সাঁতার সংস্থা।

পেনসিলভেনিয়া ইউনিভার্সিটির সাঁতারু লিয়া ২০২২ সালে নারীদের ৫০ গজের ফ্রিস্টাইল সাঁতার প্রতিযোগিতায় জয়ী হন। এর মধ্য দিয়ে প্রথম ট্রান্সজেন্ডার হিসেবে এনসিএএ (যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় কলেজ শিরোপা প্রতিযোগিতা) চ্যাম্পিয়ন হওয়ার ইতিহাস গড়েন তিনি।

এ বছর প্যারিস অলিম্পিকে প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে চান লিয়া। কিন্তু আন্তর্জাতিক সাঁতার সংস্থার নতুন নিয়মের কারণে তিনি অংশ নিতে পারছেন না।

২০২২ সালের জুনে আন্তর্জাতিক সাঁতার সংস্থা তাদের প্রতিযোগিতার জন্য নতুন নীতিমালা প্রকাশ করে। সেখানে নারী বিভাগে ট্রান্সজেন্ডার নারীদের অংশগ্রহণের সুযোগ সীমিত করা হয়।

এর আগে ট্রান্সজেন্ডার নারীরা তাদের টেস্টোস্টেরন হরমোনের মাত্রা কমিয়ে প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে পারতেন। কিন্তু গবেষকদের একটি প্যানেল দেখতে পান, ওষুধের মাধ্যমে টেস্টোস্টেরনের মাত্রা কমালেও ট্রান্সজেন্ডার নারীরা অন্য নারীদের তুলনায় বেশি শারীরিক সুবিধা পায়।

এজন্যই ২৫ বছর বয়সী লিয়া ২০২২ সালের সেপ্টেম্বরে সিএএস’র কাছে ওই বিধি-নিষেধ বাতিলে মামলাটি করেন।

সিএএস এক বিবৃতিতে বলেছে, “সাঁতারের ক্ষেত্রে ট্রান্সজেন্ডার নারীদের ওপর কিছু নিয়ন্ত্রণ দরকার। যদিও তিনি আন্তর্জাতিক সাঁতার সংস্থার বিধি-নিষেধকে অবৈধ বলে অভিযোগ করছেন। কারণ তিনি মনে করেন, ওই বিধিনিষেধ তার প্রতি বৈষম্যমূলক।”

সিএএস আরও বলছে, আন্তর্জাতিক ক্রীড়া আদালতে আপিলের শুনানি ২০২২ সালের সেপ্টেম্বরে শুরু হয়েছিল। ‘কঠোর গোপনীয়তার’ নিয়ম মেনেই প্রক্রিয়া চলছিল। কিন্তু এখন বিবদমান পক্ষগুলো গোটা প্রক্রিয়া সম্পর্কে সাধারণ তথ্য প্রকাশে সম্মত হয়েছে।

নতুন করে আপিলের শুনানির তারিখ এখনও ধার্য করেনি সিএএস।

সাইকেল চালনা এবং অ্যাথলেটিক্সের মতো সংস্থাগুলো গত দুই বছরে নারীদের শীর্ষস্থানীয় প্রতিযোগিতা থেকে ট্রান্সজেন্ডার অ্যাথলেটদের নিষিদ্ধ করেছে।

আন্তর্জাতিক সাঁতার সংস্থা ২০২৩ সালের জুনে এক ঘোষণায় জানায়, তারা সব ট্রান্সজেন্ডার অ্যাথলেটদের জন্য একটি ‘উন্মুক্ত’ বিভাগ শুরু করবে। ওই ঘোষণা অনুসারে একই বছরের অক্টোবরে বার্লিনে আয়োজিত অ্যাথলেট বিশ্বকাপে ট্রান্সজেন্ডারদের জন্য ওই বিভাগটি চালু করা হয়।

আরও পড়ুন

সর্বশেষ

ad

সর্বাধিক পঠিত

Add New Playlist